বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করার নিয়ম | bkash PIN reset

বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করার নিয়ম | bkash PIN reset বিকাশ পিন লক হলে করণীয় আজকে আমরা জানবো বিকাশের পিন ভুলে গেলে করণীয় কি অর্থাৎ বিকাশ পিন লক হয়ে গেলে কি করতে হবে। কিভাবে খুব সহজে নিজে নিজে ভুলে যাওয়া বিকাশ পিন পুনরায় রিসেট করতে পারবেন bkash PIN reset

বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় মোবাইল ব্যাংকিং অ্যাপ বিকাশ এর পিন পরিবর্তন করা বা বিকাশ পিন রিসেট করার নিয়ম সম্পর্কে জানার আগে, আমরা একটু জেনে নেই বিকাশ পিন লক হয়ে গেলে প্রথমে আপনার করনীয় কি–

 

বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করার নিয়ম

 

বিকাশের পিন লক হয় কেন | why bkash pin locked

বিকাশের পিন লক হয়ে যাওয়ার সবচেয়ে বেশি এবং কমন একটি কারণ হলো বিকাশের পিন নাম্বার ভুল প্রদান করা। আপনি যদি কোন ট্রানজেকশন করতে অথবা বিকাশ অ্যাপ এ প্রবেশের ক্ষেত্রে বিকাশের পিন নাম্বার পরপর তিনবার (৩বার) ভুল ইনপুট করেন তাহলে আপনার বিকাশ একাউন্টের পিন অটোমেটিক ব্লক হয়ে যাবে বা পিন লক করে দেওয়া হবে।
তাই যখন আপনি বিকাশের পিন দিতে যাবেন তখন খুব খেয়াল করে পিন নাম্বার ইনপুট করবেন। বিকাশ পিন নাম্বার ভুল হলে বারবার একটি পিন দিয়ে ট্রাই করবেন না। মনে করার চেষ্টা করবেন আপনি ভুল পিন দিচ্ছেন কিনা এবং আপনার সঠিক পিন নাম্বারটি দেয়ার চেষ্টা করবেন।

বিকাশ পিন লক হলে করণীয় | bkash pin lock problem

আপনার বিকাশ একাউন্টের পিন লক হয়ে গেছে বা ব্লক করে দেওয়া হয়েছে এখন কথা হচ্ছে আপনি আপনার বিকাশ একাউন্টের পিন পুনরায় কিভাবে পরিবর্তন করবেন বা খুব সহজে কিভাবে নিজের পিন নিজেরই চেক করে নেবেন।
আজকে আমরা বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করার নিয়ম সম্পর্কে জানতে পারবো। যার মাধ্যমে যে কেউ নিজের পিন লক হয়ে যাওয়া বিকাশ একাউন্টের পিন পুনরায় পরিবর্তন বা রিসেট করতে পারবে।
বিকাশ পিন পরিবর্তন করার নিয়ম এবং পিন রিসেট করার পদ্ধতি
নিজের নিজের ঘরে বসেই বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করা যায় কয়েকটি উপায় নিচে বিকাশ পিন পরিবর্তন করার নিয়ম এবং পুনরায় পিন রিসেট করার পদ্ধতি সম্পর্কে আলোচনা করা হলো
  • যেকোনো মোবাইল ফোনের মাধ্যমে বিকাশ পিন রিসেট করার পদ্ধতি
  • লাইভ চ্যাট করার মাধ্যমে বিকাশ পিন পরিবর্তন
  • কাস্টমার কেয়ারে ফোন করার মাধ্যমে বিকাশ  পিন রিসেট করার পদ্ধতি
উপরের তিনটি পদ্ধতিতে ঘরে বসে নিজে নিজেই বিকাশ পিন আনলক বা পরিবর্তন করতে পারবেন তাছাড়া আপনি চাইলে সরাসরি বিকাশ কাস্টমার কেয়ার যোগাযোগ করার জন্য করার মাধ্যমে বিকাশ ব্লক হয়ে যাওয়া পিন পরিবর্তন করতে পারবেন

ভুলে যাওয়া বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করার নিয়ম

বিকাশ একাউন্টের পিন ভুলে গেলে বা কোন কারনে বিকাশ পিন লক হয়ে গেলে যেভাবে পিন পরিবর্তন করবেন বা পুনরায় রিসেট করবেন তার উপর নিচে বর্ণনা করা হলো–
ভুলে যাওয়া বিকাশের পিন পরিবর্তন করার জন্য আপনাকে কিছু ডকুমেন্ট বা তথ্য আগে থেকেই সংগ্রহ করে রাখতে হবে কি কি ডকুমেন্ট প্রয়োজন হবে তা নিচে উল্লেখ করা হলো–
  • যে আইডি কার্ড দিয়ে বিকাশ একাউন্ট খোলা হয়েছে সেই এনআইডি কার্ডের নাম্বার
  • তবে বিকাশ কাস্টমার কেয়ারে সরাসরি কথা বলে বিকাশ পিন নাম্বার রিসেট করার ক্ষেত্রে যার  আইডি কার্ড বিকাশ একাউন্ট খোলা সে ব্যক্তি কে উপস্থিত রাখতে হবে
  • সর্বশেষ বিকাশ একাউন্ট থেকে সেন্ড মানি, পে-বিল অথবা মোবাইল রিচার্জ করার ৩টি ট্রানজেকশন এর যেকোনো একটি অ্যামাউন্ট জানা থাকতে হবে
বিঃদ্রঃ- তবে বিকাশ কাস্টমার কেয়ারে সরাসরি কথা বলে বিকাশ পিন নাম্বার রিসেট করার ক্ষেত্রে যার  আইডি কার্ড বিকাশ একাউন্ট খোলা সে ব্যক্তি কে উপস্থিত রাখতে হবে

বিকাশ পিন পরিবর্তন করার নিয়ম | নিজে নিজে *২৪৭# ডায়াল করে

১ম ধাপঃ-

বিকাশ একাউন্টের পিন রিসেট করার জন্য আপনার মোবাইল ফোনের ডায়াল প্যাড এ গিয়ে *247# কোড ডায়াল করার পর আরেকটি মেনে চলে আসবে এবং সেখানে নামক একটি অপশন থাকবে

২য় ধাপঃ-

বিকাশের পিন রিসেট করার এইভাবে এসে আপনাকে পিন্টু শেখ অপশনটি খুজে বের করতে হবে সাধারণত এটি 9 নম্বর অপশন হয়ে থাকেন তবে যেহেতু এটি একটি মেনু এটি পরিবর্তন হতে পারে কিন্তু আপনাকে ডিসিপ্লিন অপশনটি খুজে বের করতে হবে নিজের ছবিতে বিষয়টি দেখে দেওয়া হয়েছে-

৩য় ধাপঃ-

বিকাশ পিন রিসেট করার পদ্ধতি এই ধাপে আপনাকে আপনার বিকাশ একাউন্টটি যে আইডি কার্ড দিয়ে খোলা হয়েছে সে আইডি কার্ডের নাম্বার টি লিখতে হবে মনে করে থাকেন আপনি বিকাশ একাউন্ট আইডি কার্ড ছাড়া খুলেছেন তাহলে আপনার সিমটি যে আইডি কার্ড দিয়ে নিবন্ধন করা সেই আইডি কার্ডের নাম্বারটি লিখুন।

৪র্থ ধাপঃ-

বিকাশ পিন পরিবর্তন করার বা বিকাশ একাউন্টের পিন লক মুক্ত করার এই ধাপে আপনাকে ভোটার আইডি কার্ড যে জন্মসাল দেয়া থাকবে সেটি বসাতে হবে মনে রাখতে হবে শুধু চার সংখ্যার জন্ম সাল লিখে সেন্ড বাটনে ক্লিক করতে হবে-

৫ম ধাপঃ-

বিকাশ একাউন্টের পিন পরিবর্তন করার নিয়মের এখন যে ধাপটি বর্ণনা করব এটি খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি ধাপ। আপনার বিকাশ একাউন্ট থেকে লাশ 90 দিনের মধ্যে যেকোনো আউটগোয়িং ট্রানজেকশন অর্থাৎ আপনার বিকাশ থেকে সেন্ড মানি, ক্যাশ আউট, মোবাইল রিচার্জ,ট্রান্সফার বা  পে-বিল যেকোনো একটি তথ্য সিলেট করতে হবে।

৬ষ্ঠ ধাপঃ-

আপনি যে অপশনটি সিলেক্ট করবেন সেই অপশন অনুসারে যত টাকা ট্রানজেকশন হয়েছে সেই টাকার পরিমান লিখতে হবে এই ধাপে এসে। আশা করছি আপনারা বিকাশ পিন পরিবর্তন করার ধাপগুলো খুব সহজে বুঝতে পারতেছেন।

৭ম ধাপঃ-

লক হয়ে যাওয়া বিকাশের পিন পরিবর্তন করার নিয়ম এর এই ধাপে এসে আপনি যদি 1 থেকে 6 নং ধাপ সঠিকভাবে অনুসরণ করে আসেন এবং আপনার প্রদত্ত তথ্যগুলো সঠিক হয় তাহলে বিকাশ থেকে আপনার মোবাইল নাম্বারে 5 সংখ্যার একটি রেনডম পিন দেয়া হবে এবং তা পরবর্তী ধাপে কাজে লাগবে।

৮ম ধাপঃ-

বিকাশ পিন রিসেট এর উপরের ধাপগুলো সঠিক বলে ভাবে অনুসরণ করা হলে আপনার নাম্বারে একটি টেম্পোরারি পিন পাঠানো হবে এবং নিচে দেওয়া নিয়ম অনুসারে পরবর্তী ধাপগুলো অনুসরণ করার মাধ্যমে বিকাশের পিন পরিবর্তন এবং বিকাশ পিন লক হয়ে গেলে তা পুনরায় সেট করতে পারবেন।

৯ম ধাপঃ-

উপরে দেখানো ছবিটির মতো আপনাকে পুনরায় আপনার মোবাইলের ডায়াল পেট থেকে স্টার্ট 24 সেভেন হ্যাস ডায়াল করতে হবে আমরা মোবাইল দিয়ে বিকাশের পিন রিসেট করার একেবারে শেষ পর্যায়ে চলে এসেছে আর কয়েকটি ধাপ অনুসরন করার মাধ্যমে আমরা আমাদের লক হয়ে যাওয়া বিকাশের পিন খুব সহজে পরিবর্তন বা রিসেট করতে পারব।

১০ম ধাপঃ-

উপরের ছবিতে প্রদর্শিত দুটি ধাপ অতিক্রম করার পর আপনার বিকাশ একাউন্টের পিন নাম্বার রিসেট করার জন্য নিচে দেওয়ার পদ্ধতি অবলম্বন করতে হবে এবং নিচের ধাপটি অবলম্বন করার মাঝে আপনি খুব সহজে বিকাশ পিন পরিবর্তন করতে সক্ষম হবেন।

১১তম ধাপঃ-

এখন আপনাকে বিকাশ থেকে পাঠানো পেন্টিকে ওল্ড পিন এর স্থলে বসাতে হবে এবং সেন্ড বাটনে ক্লিক করতে হবে।
এর পরবর্তী ধাপে নতুন পিন এর স্থলে আপনাকে একটি 5 সংখ্যার পিন নাম্বার দিতে হবে পিন নাম্বার দেওয়ার সময় নিচের শর্তগুলো মনে রাখতে হবে

বিকাশে কি ধরনের পিন দেয়া যাবে না?

  • পিন নাম্বার অবশ্যই 5 সংখ্যার হতে হবে
  • বিকাশ পিন নাম্বার কখনো টেক্স বা ক্যারেক্টার দেওয়া যাবে না
  • বিকাশ পিন শূন্য দিয়ে শুরু হতে পারবেনা
  • কোন প্রকার ক্রমশ দেওয়া যাবে না যেমন 12345,
  • সবগুলো সংখ্যা একই রকম দেওয়া যাবে না যেমন 11111,55555
  • নিশি বিকাশ একাউন্টের লাস্ট 5 সংখ্যা দেওয়া যাবে না
  • পূর্বে ব্যবহৃত হয়েছে এমন কোন পিল ব্যবহার করা যাবে না

১২তম ধাপঃ-

আশা করছি আপনারা বিকাশ পিন রিসেট করার পুতির পদ্ধতি টির শেষ ধাপে এসে আপনার পছন্দমত 5 সংখ্যার পিন নাম্বার দিয়ে এবং পরবর্তী ধাপে পুনরায় একই পিন নাম্বার দিয়ে আপনার পিন নাম্বারটি রিসেট করতে বা পরিবর্তন করতে সক্ষম হয়েছেন।
এখন এই নতুন পিন নাম্বার ব্যাবহার করে আপনি বিকাশ একাউন্টে যে কোন লেনদেন করতে সক্ষম হবেন।

বিকাশ পিন রিসেট করার নিয়ম | বিকাশ পিন পরিবর্তন লাইভ চ্যাট

বিকাশ একাউন্টের পিন রিসেট করার জন্য আরেকটি উপায় হল বিকাশ কাস্টমার কেয়ারের সাথে সরাসরি মোবাইল মাধ্যমে চ্যাট করা অর্থাৎ আপনার মোবাইলে ইন্টারনেট সংযোগ থাকলে আপনি বিকাশ হেল্পলাইন গ্রাহকের সাথে অথাৎ কাস্টমার কেয়ারে সরাসরি চ্যাটের মাধ্যমে কথা বললে আপনার বিকাশ একাউন্টের পিন নাম্বার পরিবর্তন অথবা লক হয়ে যাওয়া পিন রিসেট করতে পারবেন।

About Alljobsnewspaper

Check Also

ফার্মেসি ব্যবসা করার নিয়মসমূহ

ফার্মেসি ব্যবসা করার নিয়মসমূহ ২০২২

ফার্মেসি ব্যবসা করার নিয়মসমূহ ২০২২ আসসালামু আলাইকুম বন্ধুরা আশা করি সবাই ভালো আছেন। আমাদের কাছে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *